পরামর্শ দিয়ে অবসরের খোঁচা শুনলেন ৩৯ বছরের হাফিজ


জাতীয় দলের হয়ে দুটি টেস্ট সিরিজ খেলা নাসিম এর পর খেলবেন অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপে। ছবি: এএফপিমাত্র ১৬ বছর বয়সে গতির ঝড় তুলে সবাইকে চমকে দিয়েছেন নাসিম শাহ। শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে এই ফাস্ট বোলার কাল প্রথমবারের মতো ৫ উইকেট পেয়ে রেকর্ডও গড়েছেন। টেস্ট ইতিহাসের দ্বিতীয় সর্বকনিষ্ঠ বোলার হিসেবে পাঁচ উইকেট পাওয়া এই পেসার শ্রীলঙ্কা সফরের পরই অবশ্য জাতীয় দল থেকে ‘বাদ’ পড়ছেন। বাংলাদেশের বিপক্ষে জানুয়ারিতে পূর্বনির্ধারিত টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি সিরিজে থাকবেন না এই পেসার।

দুর্দান্ত পারফরম্যান্সের পরও নাসিমের না থাকার কারণ অবশ্য একটু ব্যতিক্রম। নাসিমের বয়স নিয়ে সন্দেহ থাকায় সেটা প্রশ্নাতীত করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড। আর সে লক্ষ্যে জাতীয় দলের হয়ে দুটি সিরিজ খেলে ফেলার পরও দক্ষিণ আফ্রিকায় অনুষ্ঠিত অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপে পাঠানো হচ্ছে নাসিমকে। এ ব্যাপারে নির্বাচকদের ভেবে দেখার কথা বলেছিলেন পাকিস্তানের ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি দলের সদস্য মোহাম্মদ হাফিজ। এতে পাকিস্তানের সমর্থকেরা ক্ষেপে হাফিজকে বয়স নিয়ে খোঁটা দিয়ে অবসর নিতে বলেছেন।

মোহাম্মদ হাফিজ টুইটারে নির্বাচকদের উদ্দেশ্যে বিনয়ী এক পরামর্শ দিতে চেয়েছিলেন। বলেছেন, ‘নির্বাচক কমিটির কাছে আমার বিনীত পরামর্শ হলো নাসিমকে অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপে পাঠাবেন না। সে এর মাঝেই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলে ফেলেছে। এবং ওর উচিত এখন টেকনিক নিয়ে কাজ করা, এ পর্যায়ের জন্য শরীরকে প্রস্তুত করা। এর চেয়ে অন্য কোনো ফাস্ট বোলারকে পাঠালেই সেটা ভালো ফল বয়ে আনবে।’

হাফিজের পরামর্শ উড়িয়ে দেওয়ার মতো নয়। একবার উচ্চ পর্যায়ে খেলে আবার বয়স ভিত্তিক ক্রিকেটে ফেরা কারও জন্যই ভালো ফল এনে দেয় না। নিজের চেয়ে কম মানের খেলোয়াড়দের সঙ্গে খেলে দক্ষতার উন্নয়ন তো হয়-ই না উল্টো অনেক ক্ষেত্রে মানের পতন দেখা দেয়। কিন্তু পাকিস্তানের সমর্থকেরা এটা ভালোভাবে নেননি। সঙ্গে সঙ্গে তাঁকে খোঁচা দেওয়া হয়েছে বয়স নিয়ে। কেউবা তাঁকে সরাসরি অবসর নিতে বলেছেন।

এক সমর্থক বলেছেন, ‘আমি কি একটা বিনীত পরামর্শ দিতে পারি? দয়া করে পাকিস্তান ক্রিকেটেও এই যুক্তি ব্যবহার করুন। মান সম্মান নিয়ে অবসর নিন? আমাদের তো কেউ অবসর নেয় না, সবাই বের করে দিতে হয়।’ আরেক সমর্থক বলেছেন, ‘না, ওর উচিত অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপ খেলে সেরাটা দিয়ে বিশ্বকাপ নিয়ে আসা। আরেক সমর্থকও বয়স ভিত্তিক পর্যায়ে ভালো করাতেই সন্তুষ্ট, সে অনূর্ধ্ব-১৯ দলের জন্য বড় এক সমর্থক হবে।’

আরেক সমর্থক হাফিজের যুক্তি ব্যবহার করেই তাঁকে অবসর নিতে বলেছেন, ‘হাফিজ ভাই আপনারও অবসর নেওয়া উচিত যাতে তরুণ কোনো প্রতিভা সুযোগ পেতে পারে। আপনি যথেষ্ট ক্রিকেট খেলেছেন এবং বিনিময়ে কিছুই দিতে পারেননি। এখনই সময় সম্মান নিয়ে বিদায় হওয়া। মাঝে মাঝে লজ্জা পেতেও সাহসের দরকার হয়।’

তবে এক সমর্থক হাফিজের পরামর্শের যুক্তি খুঁজে পেয়েছেন, ‘চমৎকার পরামর্শ। নাসিম এখন অনূর্ধ্ব-১৯ পর্যায়ের ক্রিকেটারদের চেয়ে অনেক এগিয়ে। এখনই ভালো সময় আরেকটি নতুন বোলার এনে তাকে তৈরি করার এবং সুযোগ দেওয়ার।’





Source from @ www.prothomalo.com

Leave a Reply